বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০১:৫৪ পূর্বাহ্ন

খবরের শিরোনাম:

নাছিরনগরে সংঘর্ষের খবর প্রচার করায় হত্যমামলার আসামি হলেন সাংবাদিক।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জেলার নাসিরনগর উপজেলার এশিয়ান টেলিভিশন ও দৈনিক দেশ রূপান্তর পত্রিকা প্রতিনিধি এবং বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরামের উপজেলা সভাপতি মোঃ আব্দুল হান্নান ও তার পরিবারকে মিথ্যা খুনের মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ পাওয়া যায়।
সূত্রেজানাযায়,

গত মঙ্গলবার ২৬ এপ্রিল বেলা প্রায় ২ টায় উপজেলার বুড়িশ্বর ইউপির হাওড়ের ধান কেটে লঙ্গন নদীর তীরে রাখা হয়, সে ধান ৫০০ টাকায় পরিবহনের জন্য শ্রীঘর গ্রামের তাজুল ইসলামের ছেলে জুনাইদ (৩৪) ট্রাক্টর ড্রাইভারের সাথে কথা হয় আশুরাইল গ্রামের ধানের মালিক ইউনুছ আলীর ছেলে জালাল মিয়ার, কিন্তু অতিরিক্ত ধান বোঝাইয়ের ফলে ট্রাক্টর ড্রাইভার ট্রাক্টর ভাড়া অতিরিক্ত ২০০ টাকা যোগে ৭০০ টাকা ভাড় দাবি করে এতেই বাধে বিপত্তি,
উভয়ের মধ্যে তর্ক বিতর্ক,এক পর্যায়ে হাতাহাতি, পরবর্তিতে মারামারিতে রুপনেয়। এক পর্যায়ে উভয় পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে লিপ্ত হয় ঘন্টা ব্যাপি সংঘর্ষ চলাকালীন সময়ে শ্রীঘর গ্রামের মৃত সানু মিয়ার ছেলে নায়েব উল্লাহ (৪৫) ঘটনাস্থলেই মারাযায় ও উভয় পক্ষের ১৫ জন আহত হয়।

উক্ত মারামারির ঘটনা সাংবাদিক হান্নান মোবাইল ফোনে সরাসরি প্রচার করেন।

সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) মো: আনিছুর রহমান, থানাভারপ্রাপ্ত কর্মকর্ত মো: হাবিবুল্লাহ সরকার সহযোগী পুলিশ ও কর্তব্যরত ডাক্তার মো: আশিক মর্তুজা সীমান্ত মিলে মরদেহের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরীতে নিহতের শরীরে নানাভাবে পরীক্ষা নিরিক্ষা করার সময় সাংবাদিক আব্দুল হান্নান উপস্থিত থেকে ভিডিও ধারন করেন।

সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী শেষে জানাযায়, নিহতের শরীরে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি, উক্ত সুরতহাল রিপোর্টের ভিত্তিতে সবাই একমত হয় যে অনুমান নির্ভর উক্ত ব্যক্তি হিট ট্রোকে মারাযেয়ে থাকতে পারেন, শুধু ডান পায়ের হাটুর নীচে পুরাতন সামান্য একটি আঘাত রয়েছে বলে জানান, ময়না তদন্ত রিপোর্টের ভিত্তিতে মৃত্যুর আসল কারণ জানাযাবে।

উক্ত ঘটনায় শ্রীঘর গ্রামের মৃতের ভাই বাদী হয়ে নাসিরনগর থানায় একটি হত্য মামলা দায়ের করেন, এতে ৫নং আসামি সাংবাদিক হান্নান তার বড় ভাই ফরিদ মিয়া ও সফু মিয়া সহ ৪৯ জনকে আসামি মামলা নং ১৯ দায়ের করা হয়।

এ বিষয়ে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) মো: আনিছুর রহমান মুঠোফোনে জানান, সর্বোচ্চ পেশাদারিত্বের সাথে কাজ করছি কোন নিরপরাধ ব্যক্তি যেন হয়রানির শিকার না হয় সে দিকে নজর রাখছি, এবং প্রকৃত দোষীদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করব।

Facebook Notice for EU! You need to login to view and post FB Comments!

এই নিউজটি আপনার ফেসবুকে শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ত সংরক্ষিত bijoynagartv ওয়েবসাইটের কোন তথ্য কপি করা আইনত দণ্ডনীয়।
Developer: DesigUs
error: ওয়েবসাইটের তথ্য কপি করা আইনত দণ্ডনীয়